300X70
বৃহস্পতিবার , ২৯ জুন ২০২৩ | ৩রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অপরাধ ও দূর্নীতি
  2. আইন ও আদালত
  3. আনন্দ ঘর
  4. আনন্দ ভ্রমন
  5. আবহাওয়া
  6. আলোচিত খবর
  7. উন্নয়নে বাংলাদেশ
  8. এছাড়াও
  9. কবি-সাহিত্য
  10. কৃষিজীব বৈচিত্র
  11. ক্যাম্পাস
  12. খবর
  13. খুলনা
  14. খেলা
  15. চট্টগ্রাম

ঈদের দিনে জমেনি কুয়াকাটা

প্রতিবেদক
বাঙলা প্রতিদিন২৪.কম
জুন ২৯, ২০২৩ ৮:৪০ অপরাহ্ণ

কলাপাড়া(পটুয়াখালী) প্রতিনিধি : আজ বৃহস্পতিবার মুসলমানদের ধর্মীয় উৎসব ঈদুল আযহা। ঈদুল আযহাকে কেন্দ্র করে টানা পাঁচ দিনের ছুটির ফাঁদে দেশ। ঈদ মৌসুমকে ঘিরে আগেই প্রস্তুতি শেষ করেছে পর্যটন নির্ভর ব্যবসায়ীরা। রংয়ের তুলিতে নতুনত্ব ফিরিয়ে এনেছে বিভিন্ন হোটেল মোটেলের কতৃপক্ষ।

গত ঈদুল ফিতরের ছুটির পর থেকে তেমন কোন পর্যটকদের উপস্থিতি ছিল না কুয়াকাটায়। তাই এবারের ঈদকে সামনে রেখে ব্যাপকভাবে প্রস্তুতি নিয়েছে। বিগত মাসের ক্ষতি কিছুটা পুষিয়ে নেওয়ার স্বপ্ন দেখছে পর্যটন নির্ভর ব্যবসায়ীরা।

গত বছরের এমন সময় কুয়াকাটার হোটেল মোটেলের রুম অগ্রিম বুকিং হয়েছিল প্রায় ৭০%।

এবারের ঈদে পর্যটক খরার আশংকা করছে দেশের দ্বিতীয় সমুদ্র সৈকত কুয়াকাটা। বহুল প্রত্যাশিত পদ্মাসেতু হওয়ার ফলে সাগরকন্যাখ্যাত কুয়াকাটা দিনে দিনে পর্যটকদের কাছে প্রধান আকর্ষণীয় স্থানে পরিনত হয়েছে।

এক সময় ঢাকা থেকে কুয়াকাটা আসতে সময় নিত ১০/১২ ঘন্টা সেখানে পদ্মাসেতু হওয়ার ফলে ৫/৬ ঘন্টায় পৌঁছা যায়। যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নত হওয়ার পাশাপাশি সময় কম লাগায় পর্যটকদের উপস্থিতি এখন চোখে পড়ার মত।

সূর্যাস্ত ও সূর্যোদয় একই জায়গায় দাড়িয়ে উপভোগ করা যায় বলে এখন সারা মাসই পর্যটকদের আনাগোনা থাকে কুয়াকাটায়। গত বছর পদ্মাসেতু হওয়ার পর পরই বর্ষামৌসুমে কানায় কানায় পর্যটকদের উপস্থিতি ছিল। ব্যস্থতা ছিল পর্যটন নির্ভর ব্যবসায়ীদের মাঝে। অগ্রীম বুকিং না করার ফলে গত ঈদুল ফিতরের মৌসুমে বেগ পেতে হয়েছিল হোটেল-মোটেল কর্তপক্ষের ফলে কমিউনিটি ট্যুরিজমের মাধ্যমে রাত্রি যাপন করতে হয়েছিল।

কুয়াকাটার অভিজাত হোটেল সিকদার রিসোর্ট ও ভিলার্সের এজিএম আলআমিন উজ্জ্বল আপন বলেন, আবহাওয়া অনুকূলে না থাকায় হয়ত পর্যটকদের কিছুটা চাপ কম হতে পাবে কুয়াকাটায়।

কনফিডেন্স ট্যুরিজমের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. সাইদুর রহমান বলেন, এবারেও মোটামুটি পর্যটক থাকরক বলে মনে করছিনা।

কুয়াকাটা সি ট্যুর ট্রাভেলসের পরিচালক হোসাইন আমির বলেন, এবারের ঈদে আবহাওয়া অনুকূলে থাকলে পর্যটকদের উপস্থিতি বাড়বে।

পর্যটন উন্নয়ন কর্মী ও হোটেল সমুদ্র বিলাসের ব্যবস্থাপনা পরিচাল ডা. ঈসমাইল ইমন বলেন, সরকার যে পরিমানে রাজস্ব নিচ্ছে কুয়াকাটা থেকে সে পরিমানে সরকার উন্নয়ন করেনি।

যা যা হয়েছে তা কেবল ব্যক্তি মালিকানায় হয়েছে। অবকাঠামো উন্নয়ন হওয়ার জন্য সরকারের আরো নজর দেওয়া দরকার বলে মনে করছি। সৈকত রক্ষায় এখনি পদক্ষেপ না নেওয়া হলে মূখ ফিরিয়ে নিতে পারে বিনিয়োগকারীরা।

ট্যুরিস্ট পুলিশ কুয়াকাটা জোনের পরিদর্শক হাসনাইন পারভেজ বলেন, ঈদ আনন্দ উপভোগ করতে পর্যটক আগমন বাড়বে। সেটা মাথায় রেখে নিরাপত্তা নিশ্চিত ও অপরাধ দমনে কয়েকটি ভাগে সাজানো হয়েছে ট্যুরিস্ট পুলিশকে।

যেহেতু রিজিওনের কাজগুলো কুয়াকাটা জোন থেকে পরিচালিত হয় সেক্ষেত্রে আমাদের সেবা দিতে বেগ পেতে হবে না।

সর্বশেষ - খবর

আপনার জন্য নির্বাচিত

ইতালিতে ভারী বর্ষণে ব্যাপক ভূমিধস: নারী নিহত, নিখোঁজ ১৩

নোয়াখালীতে সম্পত্তি নিয়ে বিরোধে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকে হত্যা

‘পিএসপিকে২৮’ সিনেমায় পবনের বিপরীতে সামান্থা আক্কিনেনি

৪ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব ক্যান্সার দিবস : জটিল ও কঠিন রোগ ক্যান্সার প্রতিরোধে চাই সচেতনতা

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে দুর্ঘটনায় বেসরকারি কোম্পানির ব্যবস্থাপক নিহত

ব্রিটিশ কাউন্সিলের বৈশ্বিক ‘ইওর ওয়ার্ল্ড’ ভিডিও প্রতিযোগিতায় জাতীয় পর্যায়ে শীর্ষ সম্মান অর্জন করেছে বাংলাদেশের স্কুল স্কলাস্টিকা

রাণীনগরে তিনদিন ব্যাপী কৃষি প্রযুক্তি মেলা শুরু

আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত আবারো ছুটি বাড়লো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের

প্রথম আঘাত অভিষিক্ত তানভীরের

পুঁজিবাজারেও ডলারের প্রভাব, মন্দা কাটছেই না

ব্রেকিং নিউজ :