300X70
রবিবার , ৩ মার্চ ২০২৪ | ৮ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অপরাধ ও দূর্নীতি
  2. আইন ও আদালত
  3. আনন্দ ঘর
  4. আনন্দ ভ্রমন
  5. আবহাওয়া
  6. আলোচিত খবর
  7. উন্নয়নে বাংলাদেশ
  8. এছাড়াও
  9. কবি-সাহিত্য
  10. কৃষিজীব বৈচিত্র
  11. ক্যাম্পাস
  12. খবর
  13. খুলনা
  14. খেলা
  15. চট্টগ্রাম

জেলায় অবৈধ স্বাস্থ্যকেন্দ্র বন্ধে জেলা প্রশাসকদের সহায়তা চাইলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী

প্রতিবেদক
বাঙলা প্রতিদিন২৪.কম
মার্চ ৩, ২০২৪ ৮:৪৩ অপরাহ্ণ

বাঙলা প্রতিদিন ডেস্ক : রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি অডিটোরিয়াম হলে চারদিন ব্যাপী জেলা প্রশাসক সম্মেলনে জেলায় জেলায় অবৈধ হাসপাতাল, ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারগুলো বন্ধ্যে ও বিভিন্নধরনের অনিয়ম রোধে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের চলমান অভিযানে জেলা প্রশাসকদের কাছ থেকে সর্বাত্মক সহায়তা চেয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা সামন্ত লাল সেন।

আজ রবিবার বিকেলে সম্মেলনে উপস্থিত জেলা প্রশাসকদের উদ্দেশে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন বলেন, “সারাদেশে অবৈধ স্বাস্থ্যকেন্দ্র বন্ধ্যে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মাধ্যমে অভিযান চলছে। তবে, অনেক সময় কিছু অসাধু লোক বিভিন্ন উপায়ে এসব ক্লিনিক,ডায়াগনস্টিক সেন্টার চালু রাখতে নানা অসাধু উপায়ে চেষ্টা করে যাচ্ছে। বিভাগীয় কমিশনার ও জেলা প্রশাসকদের এগুলো লক্ষ্য রাখতে হবে এবং সর্বাত্মক সহায়তা করতে হবে।”

করোনার সময় জেলা প্রশাসকদের প্রশংসনীয় ভুমিকা তুলে ধরে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এসময় বলেন, “যেভাবে করোনার সময় আপনারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা অনুযায়ী জেলার মাঠ পর্যায়ে করোনা নির্মুলে নিরলস কাজ করেছেন তা সত্যিই প্রশংসনীয়। এখন দেশের মানুষের জন্য ভালো স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করতেও আপনাদেরকে ভুমিকা রাখতে হবে। আমরা সকলে মিলে একটি ইউনিটির মত কাজ করলে দেশের স্বাস্থ্যসেবায় অবশ্যই ইতিবাচক পরিবর্তন আনা সম্ভব হবে।”

সম্মেলনে উপস্থিত স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. রোকেয়া সুলতানা বলেন, স্বাস্থ্যখাতের দিকে সবাইকে আরো গুরুত্ব দিতে হবে। হাসপাতালে বেডের তুলনায় রোগী দ্বিগুণ বা তিনগুণ হলেও হাসপাতাল থেকে কোন রোগীকে বের করে দেওয়া হয় না। চিকিৎসা দেওয়া হয়। আমি নিজেও চিকিৎসক হিসেবে ৩৩ বছর চাকরি করেছি।

আমি জানি, আমাদের চেষ্টা থাকে কতটা। তবে, এখন সময় এসেছে আমাদের অন্যান্য সমস্যাগুলোকে চিহ্নিত করে সেগুলো একযোগে সমাধান করা। আমরা সবাই একটি ফুটবল বা ক্রিকেট টিমের মত এক হয়ে স্বাস্থ্যসেবার উন্নয়ন নিয়ে কাজ করলে স্বাস্থ্যখাতে খুব বেশি সমস্যা আর থাকবে না।

সম্মেলনে ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসক ঝিনাইদহ জেলায় আত্মহত্যার হার বেশি জন্য সেখানকার সরকারি হাসপাতালে মনোরোগ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক নিয়োগের অনুরোধ জানালে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বিষয়টি জেনে ব্যবস্থা গ্রহনের আশ্বাস দেন। এছাড়া সিরাজগঞ্জ জেলা প্রশাসক স্বাস্থ্যখাতে জনবলের ঘাটতি তুলে ধরলে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব মো জাহাঙ্গীর আলম দেড় মাসের মধ্যে জনবলের ঘাটতি অনেকটাই দূর করা হবে বলে জানান।

খাগড়াছড়ির জেলা প্রশাসক হাসপাতালে রোগীদের সময় বাঁচাতে অনলাইনে টিকিট ব্যবস্থা চালুর অনুরোধ জানালে স্বাস্থ্যমন্ত্রী ব্যবস্থা নিতে নির্দেশনা দেন। সম্মেলনে বিভাগীয় কমিশনার রংপুর হাবিবুর রহমান কুড়িগ্রাম জেলার রৌমারি উপজেলার চরাঞ্চলের স্বাস্থ্যসেবার মান বাড়াতে উদ্যোগ নেওয়ার অনুরোধ জানালে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষে স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা সামন্ত লাল সেন, স্বাস্থ্যসেবা সচিব মো জাহাঙ্গীর আলম ও স্বাস্থ্য শিক্ষা বিভাগের সচিব আজিজুর রহমান জেলা প্রশাসকদের এসব অনুরোধের উত্তর দেন এবং বিষয়গুলো গুরুত্ব সহকারে সমাধানের আশ্বাস দেন।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব মো. মাহবুব হোসেনের সভাপতিত্বে সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা সামন্ত লাল সেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী অধ্যাপক ডা রোকেয়া সুলতানা, স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব মো জাহাঙ্গীর আলম, স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের সচিব আজিজুর রহমান, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এবিএম খুরশীদ আলম, স্বাস্থ্য শিক্ষা বিভাগের মহাপরিচালক অধ্যাপক টিটু মিয়া, পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক শাহান আরা বানু এসময় উপস্থিত ছিলেন।

সর্বশেষ - খবর

আপনার জন্য নির্বাচিত

বাংলাদেশে গণমাধ্যমের স্বাধীনতা উন্নয়নশীল দেশের ক্ষেত্রে উদাহরণ : তথ্যমন্ত্রী

সিরাজদিখানে ৫ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেফতার

এবার ব্রাজিলে ‘ওমিক্রন’ শনাক্ত

ছাত্রলীগকে মেধা, প্রজ্ঞা ও অসীম সাহসিকতার দিকে ধাবিত করেছেন শেখ হাসিনা : মেয়র শেখ তাপস

বিদেশি শিল্পী দিয়ে বিজ্ঞাপন নির্মাণে বাড়তি ফি : তথ্যমন্ত্রীকে শিল্পীসমাজের কৃতজ্ঞতা

লাইকিমঞ্চো ক্যাম্পেইন চালু করলো লাইকি

মরক্কোয় বাস দুর্ঘটনায় ২৪ জন নিহত

বিস্ফোরক হামলা: কলম্বিয়ায় ৮ পুলিশ কর্মকর্তা নিহত

সমাপ্ত হয়েছে জোড় ইজতেমা: প্রথম দফা ৮-১০ জানুয়ারি, দ্বিতীয় দফা ১৫-১৭ জানুয়ারি

দি প্রিমিয়ার ব্যাংকের ১২.৫০% নগদ এবং ১০. ০০% স্টক লভ্যাংশ অনুমোদন

ব্রেকিং নিউজ :