300X70
মঙ্গলবার , ৩১ অক্টোবর ২০২৩ | ৫ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অপরাধ ও দূর্নীতি
  2. আইন ও আদালত
  3. আনন্দ ঘর
  4. আনন্দ ভ্রমন
  5. আবহাওয়া
  6. আলোচিত খবর
  7. উন্নয়নে বাংলাদেশ
  8. এছাড়াও
  9. কবি-সাহিত্য
  10. কৃষিজীব বৈচিত্র
  11. ক্যাম্পাস
  12. খবর
  13. খুলনা
  14. খেলা
  15. চট্টগ্রাম

যেভাবে গেল অবরোধের প্রথম দিন

প্রতিবেদক
বাঙলা প্রতিদিন২৪.কম
অক্টোবর ৩১, ২০২৩ ৯:২৪ অপরাহ্ণ

বাঙলা প্রতিদিন ডেস্ক : বিচ্ছিন্ন ঘটনার মধ্য দিয়ে রাজধানী ঢাকাসহ দেশব্যাপী বিএনপি-জামায়াতের ডাকা ৭২ ঘণ্টার অবরোধ কর্মসূচির প্রথমদিন পালিত হয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকাল থেকে শুরু হয় এ কর্মসূচি।

তবে কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচরে হরতাল ও অবরোধের প্রথম দিন বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষে বিল্লাল হোসেন (৪০) ও রেফায়েত উল্লাহ তনয় (২৩) নামে ২ বিএনপি নেতা নিহত হয়েছে বলে দাবী করেছে বিএনপি। এ ঘটনায় পুলিশ একজনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছে।

এদিকে, অবরোধের প্রথম দিন গতকাল মঙ্গলবার সকালে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোডে সাইনবোর্ড এলাকায় বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর নেতৃত্বে বিক্ষোভ মিছিল ও পিকেটিং করে বিএনপির নেতাকর্মীরা। এ সময় সড়কে আগুন ও গাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে।

পরে পুলিশ এসে ধাওয়া দিলে মহাসড়ক থেকে সরে যান বিক্ষোভকারীরা। আর আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে দেশজুড়ে সতর্ক অবস্থানে ছিল পুলিশ, বিজিবি ও র‌্যাবের টিম।

প্রেসক্লাবের সামনে বাসে আগুন :
জাতীয় প্রেসক্লাবের কাছে কদম ফোয়ারার সামনে একটি যাত্রীবাহী বাসে আগুন দেওয়ার ঘটনা ঘটেছে। আজ মঙ্গলবার বেলা সাড়ে তিনটার দিকে এ ঘটনা ঘটে। আগুনে বাসটি (ঢাকা মেট্রো-ব ১৩-১৪৮৩) পুরোটাই পুড়ে গিয়েছে। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে বাসের আগুন নিভিয়ে ফেলে।

‘সাভার পরিবহন’ নামে ওই বাসের চালকের সহকারী বলেন, আমরা গুলিস্তান থেকে ১৫-২০ জন যাত্রী নিয়ে যাচ্ছিলাম। প্রেসক্লাবের সামনে কয়েকজন বাস থেকে নেমে যান। এরপরই হঠাৎ করে আগুন জ্বলে উঠে।

ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের ডিউটি অফিসার এরশাদ হোসেন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে দ্রুত ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের পাঠানো হয়। তবে কে বা কারা আগুন দিয়েছে বিষয়টি নিশ্চিত করতে পারেননি তিনি।

বনানীতে পুলিশবক্সে ককটেল নিক্ষেপ, কনস্টেবল আহত :
বিএনপি-জামায়াতের অবরোধের প্রথম দিন রাজধানীর বনানীর চেয়ারম্যানবাড়ি এলাকার পুলিশ বক্স লক্ষ্য করে ককটেল নিক্ষেপ করেছে দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনায় এক কনস্টেবল আহত হয়েছেন। আজ মঙ্গলবার সকালে মোটরসাইকেলে করে এসে কয়েকজন পুলিশ বক্সে ককটেল নিক্ষেপ করে।

বনানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান জানান, ২০ থেকে ২৫ জন বিএনপি নেতা-কর্মী স্লোগান দিতে দিতে কয়েকটা মোটরসাইকেলে এসে পুলিশবক্স লক্ষ্য করে ককটেল মেরে পালিয়ে যায়।
এ ঘটনায় একজন কনস্টেবল আহত হয়েছেন, তাকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। ঘটনাস্থলের সিসিটিভি ক্যামেরার ভিডিও বিশ্লেষণ করে হামলাকারীদের শনাক্তের চেষ্টা চলছে বলেও জানান তিনি।

রূপগঞ্জের ৮ স্পটে অবরোধের সমর্থনে মিছিল : নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের ৮টি স্পটে অবরোধের সমর্থনে মিছিল, অবস্থান ও বিক্ষিপ্ত পিকেটিং করেছেন উপজেলা বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

আজ মঙ্গলবার অবরোধের সমর্থনে উপজেলার ৮ স্পটে এসব কর্মসূচি পালিত হয় বলে জানান উপজেলা বিএনপির সভাপতি মাহফুজুর রহমান হুমায়ুন।

জানা গেছে, সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত উপজেলার ভুলতায় বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠন, গোলাকান্দাইলে যুবদল ও ছাত্রদল, মুড়াপাড়ায় যুবদল ও ছাত্রদল, ঢাকা সিলেট মহাসড়কে তারাব পৌর স্বেচ্ছাসেবক দল, দাউদপুরে যুবদল ও ছাত্রদল, ঢাকা বাইপাসে কাঞ্চন পৌর ছাত্রদল, পূর্বাচল ৩০০ ফিটে তাতী দল, ঢাকা বাইপাসে গোলাকান্দাইল ইউনিয়ন যুবদলের নেতাকর্মীরা এসব কর্মসূচি পালন করেন। এসব কর্মসূচি পালনকালে সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে প্রতিবন্ধকতা, অবরোধ পালন ও মিছিল করে নানা স্লোগান দেওয়ার কথা জানায় উপজেলা বিএনপি।

নয়াপল্টনে যানবাহন ও মানুষের উপস্থিতি ছিল স্বাভাবিক :
বিএনপির ডাকা টানা তিন দিন অবরোধের প্রথম দিনে রাজধানীর নয়াপল্টন এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক ছিলো। তবে সকালে এই এলাকায় যানবাহন ও মানুষের উপস্থিতি কম থাকলেও বেলার বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তা বেড়ে যায়। বিএনপি কার্যালয় ও এর আশপাশ এলাকায় সতর্ক অবস্থানে ছিল পুলিশ ।

আজ মঙ্গলবার রাজধানীর নয়াপল্টন, কাকরাইল, নাইটেঙ্গেল মোড় ও ফকিরাপুল এলাকা ঘুরে এই চিত্র দেখা গেছে। সরেজমিনে দেখা যায়, পল্টনে বিএনপি কার্যালয়ের সামনে পুলিশের কঠোর নিরাপত্তা ছিল নয়াপল্টনজুড়ে। এলাকায় অবরোধ কর্মসূচির সময় কোন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে কিনা সেদিকে নজর রেখেছে পুলিশ।

পাশাপাশি ফকিরাপুল মোড় এবং নাইটেঙ্গেল মোড়েও অতিরিক্ত পুলিশ সদস্য মোতায়ন করা হয়। এর আশপাশের এলাকায় সামনে পুলিশের কঠোর নিরাপত্তা থাকায় বিএনপির কোন নেতা কর্মীকে অবরোধ অবস্থানে থাকতে দেখা যায়নি। সকালের দিকে এ এলাকায় সাধারণ মানুষের উপস্থিতি কম ছিলো।

দুই একটি বাস, ব্যক্তিগত কিছু গাড়ি, মোটরসাইকেল ও রিকসা ছাড়া সড়কে যানচলাচলের তেমন ভিড় ছিলো না। তবে বেলা ১১ টার পর থেকে পরিস্থিতি বদলাতে থাকে। সড়কে কর্মব্যস্ত মানুষজনের উপস্থিতি বাড়তে থাকে, সেই সঙ্গে গণ পরিবহনেরও সংখ্যা বাড়ে। তবে সকাল থেকেই নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে পুলিশের কঠোর নিরাপত্তা ছিল।

নয়াপল্টন এলাকায় অবরোধ কর্মসূচির সময় কোন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে কিনা সেদিকে নজর রাখছে পুলিশ। পাশাপাশি ফকিরাপুল মোড় এবং নাইটেঙ্গেল মোড়েও অতিরিক্ত পুলিশ সদস্য মোতায়ন করা হয়েছে। বিএনপি ডাকা ৩ দিনের অবরোধে সকাল ১১টা পর্যন্ত বিএনপির কোন নেতাকর্মীকে দলীয় কার্যালয়ের সামনে দেখা যায়নি।

হরতাল-অবরোধে ট্রেনের নিরাপত্তায় জোর : হরতাল-অবরোধে রেলওয়ের লোকো মাস্টার, সহকারী লোকো মাস্টার এবং সাব লোকো মাস্টারদের হেলমেট পরে থাকার নির্দেশনা দিয়েছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। এ ছাড়া ট্রেনের বিভিন্ন স্টেশনে নিরাপত্তা নিশ্চিতে বাড়ানো হয়েছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য। টহলে ছিল রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরাও।

রেলওয়ের তথ্যমতে, সারাদেশে বর্তমানে ২৬৩টি ট্রেন চলাচল করে। এসব ট্রেন পরিচালনায় লোকোমাস্টার (এলএম), সহকারী লোকোমাস্টার (এএলএম) ও সাব লোকোমাস্টার (এসএলএম) নিয়োজিত রয়েছেন ৮৫০ জন।

প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে বিস্তারিত;
কুলিয়ারচর (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি জানান : কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচরে হরতাল ও অবরোধের প্রথম দিন বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষে পুলিশের গুলিতে বিল্লাল হোসেন (৪০) ও রেফায়েত উল্লাহ তনয় (২৩) নামে ২ বিএনপি নেতা নিহত হয়েছে বলে দাবী করেন বিএনপি।

অস্বীকার করে বিএনপি নেতা-কর্মীদের হামলায় কুলিয়ারচর থানার ওসি মোহাম্মদ গোলাম মোস্তফাসহ কমপক্ষে ১৫ জন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে দাবী পুলিশের। গুলিতে নিহত বিল্লাল হোসেন স্থানীয় ছয়সূতী ইউনিয়ন কৃষক দলের সভাপতি ও মাধবদী গ্রামের কাজল মিয়ার ছেলে। তাকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে ভাগলপুর জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে নেওয়ার পথে মারা যায় বলে জানান তার পরিবারের সদস্যরা।

অপরদিকে ইউনিয়ন যুবদল নেতা রেফায়েত উল্লাহ তনয় বড় ছয়সূতী চক বাজার এলাকার কাউসারের ছেলে। সে ঘটনাস্থলেই গুলিতে আহত হয়ে মারা যায়। মঙ্গলবার (৩১অক্টোবর) সকাল ৮টার দিকে উপজেলার ছয়সূতী বাসস্ট্যান্ডে এ ঘটনা ঘটে। নিহত রেফায়েত উল্লাহ তনয়ের চাচা মো. আবুল কালাম (৫৬) ও ভগ্নিপতি ফয়সাল মিয়া (৩০) বলেন, রেফায়েত উল্লাহ তনয় ছয়সূতী ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড যুবদলের সভাপতি।

পুলিশ-বিএনপি’র সংঘর্ষের সময় গুলিতে আহত হলে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে ভাগলপুর জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে মারা যায় সে। ঘটনার পর একদল দূর্বৃত্ত ছয়সূতী কাঁঠালতলী এলাকায় ভৈরব-কিশোরগঞ্জ আঞ্চলিক সড়কে একটি ঔষধের পিকাপ ভ্যান ভাংচুর করে রাস্তায় আগুন ধরিয়ে দেন।

কুলিয়ারচর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ গোলাম মোস্তফা বলেন, এ ঘটনায় তিনিসহ থানার কর্তব্যরত এসআই দেব দুলাল, এসআই তারেক পারভেজ, এসআই নূরে আলম, এএসআই মান্নান, এএসআই সাকিনুর, এএসআই জুয়েল রানা, কনস্টেবল একরামুল কবির, ইসমাইল হোসেন, সঞ্জয় আহম্মদ, অনিক সরকার, একরামুল হক, জুলহাস মিয়া, সাকিল আহম্মেদ ও মালেক সরকার সহ ১৫ পুলিশ সদস্য আহত হয়।

এব্যাপারে কিশোরগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ রাসেল শেখ পিপিএম (বার) ঘটনাস্থল পরিদর্শন কালে সাংবাদিকদের বলেন, আপনারা জানেন, মানুষের জানমাল রক্ষার্থে পুলিশ দ্বায়িত্ব পালন করে। দূর্বৃত্তরা এই পুলিশকে টার্গেট করে এ রাস্তা বন্ধ করেছিলো। টায়ার জালিয়েছে, ককটেল বিস্ফোরন করেছে, পুলিশকে টার্গেট করে ইটপাটকেল ছুঁড়েছে। পুলিশকে আহত এবং নিহত করার জন্য এহেন কোন কাজ নেই যে তারা করেনাই।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশের আইনানুক অধিকার আছে। তাদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ কাজ করেছে। শুনেছি পুলিশসহ বেশ কিছু লোক আহত হয়েছে। নিহত ও আহতের বিষয় নিয়ে এখন পর্যন্ত অবগত নই। হাসপাতাল গুলোতে খুঁজ নেওয়ার পর কনফার্ম হয়ে সঠিক তথ্য দেওয়া যাবে।

দূর্বৃত্তরা যারা এই কাজ করেছে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বর্তমানে বাজিতপুর সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার সত্যজিত কুমার ঘোষ পুলিশ ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে মোতায়েন আছে।

এর আগে সকাল ৭টার দিকে বিএনপি-জামাতের হরতাল ও অবরোধ প্রতিরোধে উপজেলার বাজরা বাসস্ট্যান্ডে অবস্থান কালে দূর্বৃত্তরা রামদী ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. হবি মিয়ার উপর হামলা করে মারধোর করার অভিযোগ পাওয়া যায়।

স্থানীয়রা আহত হবি মিয়াকে উদ্ধার করে কুলিয়ারচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিয়ে ভর্তি করেন। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন হবি মিয়া বলেন, বিএনপির নেতাকর্মীরা তাকে একা পেয়ে নির্মম ভাবে মেরে তিন চারটি দাঁত ভেঙ্গে ফেলেছে। তিনি এ ঘটনার বিচার দাবী করেন।

রাজশাহী ব্যুরো জানান : রাজশাহী মহানগরীর গ্রেটাররোড এলাকায় টায়ার জ্বালিয়ে সড়ক অবরোধের চেষ্টা করেন ছাত্রদল নেতাকর্মীরা। তবে খবর পেয়ে পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে সেখানে গেলে তারা সড়ক ছেড়ে আশপাশের গলিপথ দিয়ে সটকে পড়েন। এরপর মহানগরীর বিনোদপুরে অবরোধের সমর্থনে মিছিল বের করা হয়।

বিক্ষোভ মিছিল শেষ করে গাছ ফেলে ছাত্রদলকর্মীরা সড়ক অবরোধের চেষ্টা করলে পুলিশ গিয়ে ধাওয়া করে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এরপর সিটি হাট সড়কে ব্যানার নিয়ে অবরোধের সমর্থনে বিক্ষোভ মিছিল বের করে জামায়াত-শিবির। তারা সড়ক অবরোধ করতে টায়ার জ্বালিয়ে দেন। তবে পুলিশ পৌঁছার আগেই তারা গা ঢাকা দেন।

পল্টন এলাকায় ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবদলের বিক্ষোভ মিছিল : সরকারের পদত্যাগের এক দফা দাবিতে সারা দেশে তিন দিনের সর্বাত্মক অবরোধ কর্মসূচির প্রথম দিনে রাজধানীতে বিক্ষোভ মিছিল ও পিকেটিং করেছে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবদল।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর কাকরাইল নাইটেঙ্গেল মোড় থেকে শুরু হয়ে পল্টন মোড় ঘুরে কস্তুরী হোটেলের সামনে এসে সংক্ষিপ্ত সমাবেশের মাধ্যমে মিছিল শেষ করা হয়। মিছিলের নেতৃত্বে ছিলেন যুবদল কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির ১ নং সহ-সভাপতি নুরুল ইসলাম নয়ন।

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি জানান: নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধের সময় বিএনপির নেতা-কর্মীরা পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়েছেন। তখন যুবলীগের কর্মীরা ঘটনাস্থলে এলে তাদেরও ধাওয়া দেন বিএনপির কর্মীরা। এসময় ঘটনাস্থল ও আশপাশের এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। সংঘর্ষে পাঁচ পুলিশ সদস্য, বিএনপির অর্ধশতাধিক নেতা-কর্মী ও যুবলীগের কয়েকজন নেতা-কর্মী আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টায় উপজেলার পাঁচরুখী এলাকার মহাসড়কে এ সংঘর্ষ হয়। আহতদের মধ্যে নুরুল হক (৫০) নামে এক পুলিশ সদস্যের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

সংঘর্ষ চলাকালে পাঁচটি বাস ভাঙচুর করেন বিএনপির নেতা-কর্মীরা। এক পর্যায়ে যুবলীগের নেতা-কর্মীরা লাঠিসোঁটাসহ এলে তাদেরও ধাওয়া দেন বিএনপির নেতা-কর্মীরা।

সংঘর্ষে পুলিশের পাঁচ সদস্য, বিএনপির অর্ধশতাধিক নেতা-কর্মী ও আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতা-কর্মীও আহত হন। এসময় নুরুল হক নামের এক কনস্টেবল লাঠির আঘাতে মারাত্মক আহত হন। তাকে দ্রুতই হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

মেট্রো চলাচল স্বাভাবিক, নিরাপত্তায় বাড়তি পুলিশ : বিএনপির ডাকা টানা তিন দিনের অবরোধের প্রথম দিনে রাজধানীতে মেট্রোরেল চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার অন্যান্য দিনের মতোই মেট্রোরেল সকাল ৮টা থেকে চলাচল শুরু করে। যাত্রীও ছিলেন অন্যান্য দিনের মতোই।

অবরোধে পরিস্থিতি স্বাভাবিক: নারায়ণগঞ্জ নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) গোলাম মোস্তফা রাসেল বলেছেন, মহাসড়কে পণ্যবাহী ট্রাক ও বাস চলাচল করছে। আমাদের মোবাইল টিম কাজ করছে।

পাশাপাশি পুলিশ-র‌্যাব ও বিজিবির যৌথ টহল টিম ম্যাজিস্ট্রেটসহ কাজ করছে।
মঙ্গলবার (৩১ অক্টোবর) ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে বিএনপির ডাকা টানা ৭২ ঘণ্টার অবরোধে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণে এসে তিনি এ কথা বলেন।

রাবির ৩ ভবনে ছাত্রদলের তালা :
অবরোধ সফল করতে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) তিন একাডেমিক ভবনে তালা দিয়েছে শাখা ছাত্রদল। তবে জানতে পেরে প্রক্টরিয়াল বডি এসব তালা খুলে ফেলেছে। এদিকে অবরোধ প্রতিহতের ঘোষণা দিয়ে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ করেছে ছাত্রলীগ। মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে।

শাখা ছাত্রদলের আহ্বায়ক সুলতান আহমেদ রাহী বলেন, অবরোধ সর্বাত্মকভাবে পালন করতে আমরা মাঠে আছি। সমাবেশে হামলা, হত্যা, গ্রেফতারের প্রতিবাদ এবং সরকার পতনের একদফা দাবি আদায়ে এ কর্মসূচি পালনে শাখা ছাত্রদল সর্বোচ্চ ভূমিকা রাখবে বলে জানান তিনি।

মোরেলগঞ্জ প্রতিনিধি জানান : বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে বিএনপির জামায়াতের ৪ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার পুলিশ। এরা হচ্ছেন পৌর বিএনপির সদস্য মো. মাসুম ফকির, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক মেহেদী হাসান রুবেল, বিএনপি নেতা বাবুল জজ ও জামায়াত কর্মী মো. আবুল বাশার। সোমবার দিবাগত রাত ২টার দিকে পুলিশ এদেরকে নিজ নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে।

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি জানান : নাশকতা মামলায় কুষ্টিয়ায় বিএনপির সাবেক তিন সংসদ সদস্যকে (এমপি) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার বেলা ১১টার সময় তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতার ব্যক্তিরা হলেন-কুষ্টিয়া জেলা বিএনপি সভাপতি ও কুষ্টিয়া-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য মেহেদী আহমেদ রুমী, সাধারণ সম্পাদক ও কুষ্টিয়া-৩ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য সোহরাব উদ্দিন ও দৌলতপুর উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও কুষ্টিয়া-১ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য রেজা আহমেদ বাচ্চু মোল্লা।

পুলিশ জানিয়েছে, বেলা ১১টার দিকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এ ছাড়াও নাশকতা মামলার আসামি পিন্টুসহ বিএনপি ও অঙ্গ-সংগঠনের আরও কয়েকজন নেতাকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দ আশিকুর রহমান জানান, সোমবার পুলিশের করা একটি নাশকতা মামলায় মঙ্গলবার ১১টার সময় জেলা বিএনপির কার্যালয়ের সামনে থেকে মেহেদী আহমেদ রুমি ও সোহরাব উদ্দিনকে গ্রেফতার করা হয়।

কুমিল্লা প্রতিনিধি জানান : কুমিল্লায় অবরোধের সমর্থনে মিছিল বের করলে বাধা দেয় পুলিশ। এতে পুলিশের সঙ্গে জামায়াত ও বিএনপি সমর্থকদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া, সাউন্ড গ্রেনেড নিক্ষেপ, ককটেল বিস্ফোরণ ও ফাঁকা গুলি ছোড়ার ঘটনা ঘটে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লা সদর উপজেলার ঝাগুরজুলি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

কুমিল্লার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) কামরান হোসেন বলেন, বিএনপি-জামায়াতের কর্মীরা মহাসড়ক অবরোধের চেষ্টা করলে পুলিশ তাদের ছত্রভঙ্গ করার চেষ্টা করে। এসময় তারা ইটপাটকেল ছুঁড়ে মারলে পুলিশের একটি গাড়ির কাচ ভেঙে যায়। পুলিশের কয়েকজন সদস্যের গায়ে ইট পড়ে। অবরোধকারীরা মহাসড়কে অবস্থান নিতে পারেনি।

ময়মনসিংহ ব্যুরো জানান : নির্দলীয় নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে সুষ্ঠু নির্বাচন, বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ও দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ গ্রেফতারকৃত নেতাকর্মীদের মুক্তির দাবিতে ময়মনসিংহে বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বিএনপি ঘোষিত ৭২ ঘণ্টা অবরোধের প্রথম দিন মঙ্গলবার ময়মনসিংহ মহানগরের পাটগুদাম বাসস্ট্যান্ড এলাকায় মহানগর বিএনপির উদ্যোগে এ বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স, ময়মনসিংহ মহানগর বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক আবু ওয়াহাব আকন্দ, বিএনপি নেতা রতন আকন্দ, যুবদলের কেন্দ্রীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক জোবায়েদ হোসেন শাকিল, মহানগর ছাত্রদলের সভাপতি নাইমুল করিম লুইন, সাধারণ সম্পাদক তানভীর আহমেদ রবিন, মহানগর যুবদলের যুগ্ম সম্পাদক শেখ নুর আলম সিদ্দিকী, ময়মনসিংহ উত্তর জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সম্পাদক নাইমুর আরেফিন পাপনসহ বিএনপি ও অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা অবরোধের সমর্থনে এ মিছিলে অংশ নেন। পরে নেতাকর্মীরা মহানগরের বিভিন্ন সড়ক ও রেলপথ অবরোধ করে রাখেন।

সিলেট ব্যুরো জানান : বিএনপি-জামায়াতের ডাকা তিন দিনের অবরোধ কর্মসূচির প্রথম দিনে গতকাল মঙ্গলবার সিলেটে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। বিএনপির দাবি, দিলু আহমদ ওরফে জিলু (৪০) নামের ওই যুবক গোলাপগঞ্জ উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য। অবরোধ কর্মসূচি চলাকালে পুলিশের ধাওয়ায় গাছে ধাক্কা লেগে তিনি গুরুতর আহত হন। পরে তাঁকে নির্যাতন করে পুলিশ। বিকেলে ওই যুবক মারা যান।

তবে বিএনপির অভিযোগ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছে পুলিশ। দক্ষিণ সুরমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শামসুদ্দোহা বলেন, ওই যুবক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন। খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে যায়। স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় তাঁকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাঁর মৃত্যু হয়। বিএনপির দাবি সঠিক নয়।

বিএনপির নেতা-কর্মীরা দাবি করেন, সকাল আটটা থেকে সাড়ে আটটার মধ্যে দক্ষিণ সুরমা উপজেলার লালাবাজার এলাকায় ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে যুবদলের নেতা-কর্মীরা অবরোধের সমর্থনে অবস্থান নেন। তখন পুলিশ মারমুখী হয়ে তাঁদের ধাওয়া করে। এ অবস্থায় সবাই দৌড়ে পালাতে থাকেন। দিলু আহমদও সঙ্গে থাকা মোটরসাইকেলে স্থান ত্যাগ করতে রওনা হন।

এ সময় পুলিশের একটি গাড়ি ওই মোটরসাইকেলকে জোরে ধাক্কা দেয়। এতে মোটরসাইকেল থেকে ছিটকে পড়ে গাছে ধাক্কা লেগে গুরুতর আহত হন তিনি। পরে পুলিশ তাঁদের গাড়িতে করে দিলুকে নিয়ে যায়। পুলিশের হেফাজতে থাকার সময়ও তাঁকে নির্যাতন করা হয়। বিকেলের দিকে দিলুর মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়।
এদিকে দিলুর ভাই মো. বুলু মিয়া (৪৫) দাবি করেছেন, পাঁচ ভাইয়ের মধ্যে দিলু সবার ছোট। তাঁর ভাই কোনো রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সম্পৃক্ত নন।

তিনি সাধারণ একজন মানুষ। জরুরি প্রয়োজনে সকালে বাড়ির বাইরে বেরিয়েছিলেন। পুলিশের গাড়ির ধাক্কায় নয়, দিলু সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন।
তবে জেলা বিএনপির সভাপতি আবদুল কাইয়ুম চৌধুরী বলেন, ‘দিলু যুবদলের কর্মী। পরিবার কেন বিষয়টি অস্বীকার করছে, তা বুঝতে পারছি না।

অবরোধ কর্মসূচিতে অংশ নিতেই দিলু লালাবাজার এলাকায় যান। পুলিশ ইচ্ছাকৃতভাবেই তাঁকে ধাক্কা দিয়ে গুরুতর আহত করে। পরে হেফাজতে নিয়েও তাঁকে নির্যাতন করা হয়। এখন বিষয়টিকে দুর্ঘটনা হিসেবে চালিয়ে দেওয়ার অপচেষ্টা চলছে।’

জানতে চাইলে মহানগর পুলিশের উপকমিশনার মো. আজবাহার আলী শেখ বলেন, প্রত্যক্ষদর্শী থেকে শুরু করে নিহতের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে আলাপ করে পুলিশ জানতে পেরেছে, এটা দুর্ঘটনা। দিলুকে পুলিশের হেফাজতে আনার বিষয়টি সঠিক নয়।

বগুড়া প্রতিনিধি জানান : বগুড়া সদর উপজেলায় এ জে আর কুরিয়ার সার্ভিসের গাড়িতে আগুন লাগিয়ে দিয়েছে অবরোধকারীরা। বিএনপি-জামায়াতের ডাকা তিনদিনের অবরোধের প্রথম দিন গতকাল মঙ্গলবার বিকেল পৌনে ৩টার দিকে উপজেলার বাঘোপাড়ায় ঢাকা-রংপুর মহাসড়কে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বগুড়া থেকে এ জে আর পার্সেল অ্যান্ড কুরিয়ার সার্ভিসের একটি কাভার্ডভ্যান রংপুরে যাচ্ছিল। পথে বাঘোপাড়ায় অবরোধকারীরা গাড়িতে আগুন লাগিয়ে দেয়। এতে গাড়ির সামনের অংশ পুড়ে যায়। খবর পেয়ে পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা গিয়ে আগুন নেভায়।

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি জানান : খাগড়াছড়িতে বিএনপি এবং জামায়াতের ডাকা ৭২ ঘণ্টার অবরোধের প্রথম দিন মঙ্গলবার সকালে জেলার বিভিন্ন স্থানে টায়ার জ্বালিয়ে ও গাছের গুঁড়ি ফেলে সড়ক অবরোধ করেছেন পিকেটাররা। তবে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তাদের উপস্থিতি কমতে থাকে।

এদিকে অপ্রীতিকর ঘটনা মোকাবিলায় একদিন আগে থেকে কঠোর অবস্থানে রয়েছে প্রশাসন। জেলার গুরুত্বপূর্ণস্থানে আইনশৃঙ্খলাবাহিনীর অতিরিক্ত সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে।

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি জানান : টাঙ্গাইলে আওয়ামী লীগের অবরোধবিরোধী মিছিলে দুই গ্রুপের সংঘর্ষের ঘটনায় আহত হয়েছেন তিনজন। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে আদালত প্রাঙ্গণে শহর আওয়ামী লীগের সভাপতি পৌর মেয়র এসএম সিরাজুল হক আলমগীরের উপস্থিতিতে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এ সময় ৩ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হেলাল ফকিরসহ তিনজনকে কুপিয়ে আহত করা হয়েছে। তাদের টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি জানান : ঢাকার ধামরাইয়ে একটি স্কুলবাসসহ দুটি বাস ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল মঙ্গলবার সকালে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের শ্রীরামপুর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। আটক ব্যক্তিরা হলেন-মো. রাকিব হাসান, মোর্শেদুল ইসলাম ও মো. মোস্তফা।

পুলিশ জানায়, সকাল ৯টার দিকে বিএনপির সমর্থকরা শ্রীরামপুর এলাকায় জড়ো হন। সেখানে তারা আমিন মডেল টাউন স্কুল অ্যান্ড কলেজের একটি স্কুলবাস ও আরেকটি যাত্রীবাহী বাসে ভাঙচুর চালায় বলে দাবি করেন পুলিশ।

সর্বশেষ - খবর

ব্রেকিং নিউজ :