খিলক্ষেতে জাতীয় শোকদিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল

খিলক্ষেত নামাপাড়া ইউনিট আওয়ামী লীগ আয়োজিত, মুজিব অনুসারীদের উদ্যোগে আলোচনা সভা, দোয়া মাহফিল ও গণভোজের আয়োজন করা হয়

নিজস্ব প্রতিবেদক:
রাজধানীর খিলক্ষেত নামাপাড়ায় ১৫ আগষ্ট জাতীয় শোকদিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত সোমবার বিনম্র শ্রদ্ধা আর ভালোবাসার মধ্য দিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫তম শাহাদৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোকদিবস পালিত হয়েছে। সেই সঙ্গে ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলায় নিহতসহ সকল শহীদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে দোয়া করা হয়। খিলক্ষেত নামাপাড়া ইউনিট আওয়ামী লীগ আয়োজিত, মুজিব অনুসারীদের উদ্যোগে আলোচনা সভা, দোয়া মাহফিল ও গণভোজের আয়োজন করা হয়। প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা হাজী আঃ সালাম দর্জির সভাপতিত্বে স্বাস্থ্যবিধি মেনে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন খিলক্ষেত থানা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক হাজী আসলাম উদ্দিন (এম.এ)। এসময় আরো বক্তব্য দেন খিলক্ষেত থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এডভোকেট মতিউর রহমান, ৯৬ নাম্বার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজি আমিনুল ইসলাম, খিলক্ষেত থানা আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য মাসুম বিল্লাহ, খোরশেদ আলম রনি, খিলক্ষেত থানা স্বেচ্ছাসেবক লীগ সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ হারুনুর রশীদ হারুন, ৪৩ নাম্বার ওয়ার্ড স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হাফিজুর রহমান প্রমূখ। অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, ‌বঙ্গবন্ধু বাঙালি ও বাংলার অবিচ্ছেদ্য অংশ। দেশের মানুষের আশা আকাঙ্ক্ষা ও বাঙালি জাতির অস্তিত্ব ধুলিস্যাৎ করতেই ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যা করেছে স্বাধীনতা বিরোধী কুচক্রীমহল। আরো বলেন, আমরা শোক দিবস পালন করছি সেটা যেমন বড় কথা, তার চেয়ে বড় কথা হচ্ছে বঙ্গবন্ধুর দর্শন ও আদর্শ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন করা। অসাম্প্রদায়িক চেতনায় জাতির জনকের স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তোলার জন্য বক্তারা সবার প্রতি আহ্বান জানান। এছাড়া সভায় “১৯৭৫ সালের ১৫ আগষ্টের এই দিনে বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ পরিবারের সকল শহীদদের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন। এ সময় আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মী, এলাকার বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ, বিভিন্ন পেশাজীবী ও সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।