গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন: আজ প্রধান আসামি বাদলের রিমান্ডের চাইবেন পুলিশ

প্রধান আসামি বাদলের রিমান্ডের চাইবেন পুলিশ

নোয়াখালী প্রতিনিধি: নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে অনৈতিক প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় স্বামীকে বেঁধে রেখে গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের ঘটনার মামলার প্রধান আসামি বাদলকে থানায় হস্তান্তর করেছে র‌্যাপিড অ্যকশান ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।

সোমবার (৫ অক্টোবর) রাতে তাকে বেগমগঞ্জ থানায় হস্তান্তর করে র‌্যাব-১১ এর একটি দল।

বেগমগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হারুনুর রশীদ চৌধুরী বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, গ্রেফতার বাদলকে মঙ্গলবার (৬ অক্টোবর) আদালতে পাঠিয়ে রিমান্ডের আবেদন করা হবে।

এর আগে সোমবার ভোরে ঢাকার কামরাঙ্গিরচর এলাকা থেকে বাদলকে গ্রেফতার করে র‌্যাব।

রোববার (৪ অক্টোবর) দিনগত রাত ১টায় বাদলকে প্রধান আসামি করে ৯ জনের বিরূদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইন এবং পর্নোগ্রাফি নিয়ন্ত্রণ আইনে পৃথক ২টি মামলা করেন ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূ।

ঘটনার ৩২দিন পর রোববার দুপুরে ওই গৃহবধূকে নির্যাতনের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রকাশ পেলে তা ভাইরাল হয়। আর এতেই টনক নড়ে স্থানীয় প্রশাসনের। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত স্থানীয় দেলোয়ার, বাদল, কালাম ও তাদের সহযোগীরা নির্যাতিতা গৃহবধূর পরিবারকে কিছুদিন অবরুদ্ধ করে রাখে।

একপর্যায়ে তার পুরো পরিবারকে বাড়ি ছাড়তে বাধ্য করলে পুরো ঘটনা দীর্ঘদিন স্থানীয় এলাকাবাসী ও পুলিশ প্রশাসনের অগোচরে থাকে। পরে ঘটনা জানাজানি হলে পুলিশ ও র‌্যাব কয়েক দফায় অভিযান চালিয়ে প্রধান আসামিসহ ৪ আসামিকে গ্রেফতার করে।