ফেসবুকে সেলিব্রেটি হতে ধর্ষণবিরোধী প্রতিবাদ নিয়ে উস্কানি, গ্রেপ্তার ১

নিজস্ব প্রতিবেদক: চলমান ধর্ষণবিরোধী প্রতিবাদের বিরুদ্ধে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে উস্কানিমূলক পোস্ট দিয়ে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করার দায়ে শেখ মোহাম্মদ সারাফ নাওয়ার (১৯) নামে এক তরুণকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১।

ফেসবুকে ধর্ষণে উস্কানিমূলক বিভিন্ন পোস্ট করে দ্রুত সময়ে ফেসবুক সেলিব্রেটি হওয়ার আশায় সে এমন কাজ চালিয়ে আসছিলো বলে জানিয়েছে র‌্যাব। আজ রোববার (১১ অক্টোবর) এসব তথ্য জানিয়েছে র‌্যাব সদর দপ্তর।

র‌্যাব জানায়, গতকাল শনিবার (১০ অক্টোবর) রাজধানীর খিলক্ষেত থানা এলাকা থেকে ওই তরুণকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তার কাছ থেকে ১টি মোবাইল ফোন জব্দ করা হয়, যাতে ধর্ষণের প্রতিবাদ বিরোধী পোস্টের ২টি স্ক্রিনশট পাওয়া গেছে।

র‌্যাব-১ এর স্কোয়াড কমান্ডার, ক্রাইম প্রিভেনশন কোম্পানির (সিপিসি-৩) এএসপি মুশফিকুর রহমান তুষার জানান, সারাদেশে ক্রমবর্ধমান ধর্ষণের ঘটনার প্রেক্ষিতে সচেতন নাগরিকসহ যুবসমাজ প্রতিবাদ করে যাচ্ছেন। এই চলমান ধর্ষণবিরোধী প্রতিবাদের বিরুদ্ধে কিছু সংখ্যক লোক সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে উস্কানিমূলক পোস্ট দিয়ে অস্থিতিশীল পরিস্থিতির সৃষ্টি করছে। এমন পরিস্থিতিতে র‌্যাব-১ এর সাইবার মনিটরিং টিম ফেসবুকে ধর্ষণবিরোধী প্রতিবাদের বিরুদ্ধে উস্কানিমূলক ও কুরুচিপূর্ণ পোস্ট দেয়া কয়েকটি আইডি শনাক্ত করতে সক্ষম হয়।

তিনি আরও জানান, নজরদারীতে দেখা যায়, চলমান প্রতিবাদকে উস্কে দিতে একটি ফেসবুক আইডি থেকে ধর্ষণে উদ্বুদ্ধ করে উস্কানিমূলক পোস্ট দিয়ে বিকৃত মানসিকতা প্রকাশ করে আসছে। যা খুব দ্রুত সময়ে ভাইরাল হয়ে যায়। সে অনুযায়ী পোস্টদাতাকে খুঁজে বের করে আইনের আওতায় আনতে র‌্যাব-১ গোয়েন্দা নজরদারি শুরু করে। এক পর্যায়ে রাজধানীর খিলক্ষেত বোনসাই বাংলা খাবার হোটেলের সামনে অভিযান চালিয়ে শেখ মোহাম্মদ সারাফ নাওয়ারকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার সারাফকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের ভিত্তিতে র‌্যাবের এই কর্মকর্তা জানান, ফেসবুকে ধর্ষণে উস্কানিমূলক বিভিন্ন পোস্ট করে দ্রুত সময়ে ফেসবুক সেলিব্রেটি হওয়ার আশায় সে এমন কাজ চালিয়ে আসছে। সে মোহাম্মদপুর এলাকার স্থানীয় কিশোর গ্যাংয়ের সঙ্গে জড়িত। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।