নড়াইলে আওয়ামীলীগের দুই বিদ্রোহী প্রার্থী বহিষ্কার

প্রতিনিধি, নড়াইল: নড়াইল জেলার দুই পৌরসভার ভোট আগামী ৩০ জানুয়ারি। পৌরসভা নির্বাচনকে ঘিরে আওয়ামী লীগের দুই বিদ্রোহী প্রার্থীকে দল থেকে বহিস্কার করেছে।

এরা হচ্ছে নড়াইল পৌর মেয়র প্রার্থী পৌর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সরদার আলমগীর হোসেন এবং কালিয়া পৌরসভার বর্তমান মেয়র স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা মুশফিকুর রহমান লিটন। জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সুবাস চন্দ্র বোস রোববার (১০ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, রোববার মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষদিনে সরদার আলমগীর হোসেন এবং মুশফিকুর রহমান লিটন মেয়র পদে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার না করায় দলীয় সিদ্ধান্ত মোতাবেক তাদের দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। তবে কালিয়া পৌর নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা বি এম এমদাদুল হক টুলু মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন।

এদিকে, নড়াইল পৌরসভায় মেয়র পদে চার প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বীতা করছেন। এরা হলেন-আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আঞ্জুমান আরা, বিএনপি প্রার্থী জুলফিকার আলী, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সরদার আলমগীর হোসেন এবং ইসলামি শাসনতন্ত্র আন্দোলনের (হাতপাখা প্রতীক) মাওলানা মোহাম্মদ খায়রুজ্জমান।

অন্যদিকে, কালিয়া পৌরসভায় মেয়র পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ওয়াহিদুজ্জমান হীরা, বিএনপি প্রার্থী স ম ওয়াহিদুজ্জমান এবং আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মুশফিকুর রহমান লিটন নির্বাচনী মাঠে আছেন।

নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, নড়াইল পৌরসভায় সংরক্ষিত কাউন্সিলর (নারী) পদে ১১ ও সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৩৯ জন এবং কালিয়া পৌরসভায় সংরক্ষিত কাউন্সিলর (নারী) পদে নয়জন এবং সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৩২জন নির্বাচনী মাঠে আছেন। রোববার প্রত্যাহারের শেষদিনে নড়াইল ও কালিয়া পৌরসভায় সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে একজন এবং সাধারণ কাউন্সিলর পদে নয়জন মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।

আজ সোমবার (১১ জানুয়ারি) প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে। আগামী ৩০ জানুয়ারি নড়াইল ও কালিয়া পৌরসভায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।