গভীর রাতে ঘুমন্ত কিশোরীকে বাড়ি থেকে অপহরণ

সংবাদদাতা, রাজশাহী: চার থেকে পাঁচজন মিলে ঘুমন্ত অবস্থায় বাড়ি থেকে এক স্কুলছাত্রীকে অপহরণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় স্কুলছাত্রীর মা থানায় একজনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা চার-পাঁচজনের নামে অপহরণ মামলা করেছেন। তবে ঘটনার দুই দিন পরও পুলিশ স্কুলছাত্রীকে উদ্ধার করতে পারেনি। ঘটনাটি ঘটে রাজশাহীর পুঠিয়ায় রাজবাড়ী এলাকায়।

জানা গেছে, বুধবার (১৭ নভেম্বর) রাত ১২টার দিকে উপজেলার কৃষ্ণপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে বলে পুলিশ জানিয়েছে। স্কুলছাত্রী পুঠিয়া মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজের দশম শ্রেণির ছাত্রী। অভিযুক্তের নাম আবদুল্লাহ। সে একই প্রতিষ্ঠানের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র। আবদুল্লাহ পুঠিয়ার রাজবাড়ী এলাকার কচি আহম্মদের ছেলে।

স্কুলছাত্রীর মা বলেন, তারা সনাতন ধর্মের আর আবদুল্লাহ মুসলিম। একই প্রতিষ্ঠানে পড়ার সুবাদে প্রতিনিয়ত তার মেয়েকে উত্ত্যক্ত করত আবদুল্লাহ। বুধবার রাতে খাওয়া শেষে বাড়ির সবাই ঘুমিয়ে পড়েন। রাত প্রায় ১২টার দিকে ঘরের বাইরে তারা কারও গোঙানোর শব্দ শুনতে পান। দরজা খুলে দেখেন আবদুল্লাহসহ চার থেকে পাঁচ যুবক মেয়েকে জোর করে মাইক্রোবাসে তুলছে। সে সময় তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন আসতে দেখে দ্রুত গাড়ি নিয়ে চলে যায় অপহরণকারীরা।

এ বিষয়ে রাজশাহীর পুঠিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সোহরাওয়ার্দী হোসেন বলেন, ‘মেয়েকে অপহরণের ঘটনায় মা বাদী হয়ে থানায় মামলা করেছেন। পুলিশ স্কুলছাত্রীকে উদ্ধারের চেষ্টা করছে।