বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৪:০০ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
নেতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি এবং বৈষ্যম্য কমিয়ে মাদকমুক্ত ব্যক্তিদের অনুপ্রাণিত করতে হবে বাংলাদেশ ব্যাংকের সাথে সাউথইস্ট ব্যাংকের চুক্তি স্বাক্ষর গণতন্ত্র, অগ্রগতি, বিশ্ব নারী জাগরণের প্রতীক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা : তথ্যমন্ত্রী ইসলামী ব্যাংকের শরী‘আহ সুপারভাইজরি কমিটির সভা অনুষ্ঠিত ব্র্যাক ব্যাংকের ৮০০টি এজেন্ট ব্যাংকিং আউটলেট চালুর মাইলফলক অর্জন মানসম্মত সুশিক্ষাই টেকসই উন্নয়নের হাতিয়ার পাটকাঠি আস্ত রেখে পাটের আঁশ ছাড়ানোর যন্ত্র আবিষ্কার করলো বারি’র বিজ্ঞানীরা ঈশ্বরদী ইপিজেডে চীনা কোম্পানির ১২০ লাখ মার্কিন ডলার বিনিয়োগ হৃদরোগ ঝুঁকি মোকাবেলায় কমিউনিটি ক্লিনিক পর্যায়ে চিকিৎসাসেবা নিশ্চিত করতে হবে ‘‌পাটখাতের রপ্তানী বাণিজ্য সম্প্রসারণে অংশীজনদের সার্বিক সহযোগিতা করা হবে’ ভাষাসৈনিক সাংবাদিক রণেশ মৈত্রের মৃত্যুতে সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রীর শোক করতোয়ায় নৌ-দুর্ঘটনা: মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৬৬

মাসিকের সময়ে স্বাস্থ্য ঠিক রাখতেই ‘ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিন’

২০১৯ সালে পথচলা ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিনের সুবিধা পেয়েছেন ঢাবির ১৫ হাজার শিক্ষার্থী
 ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিনের আওতায় আসছে আরো ৩৫ লাখ শিক্ষার্থী
সোহেল রানা : আনিকা (কাল্পনিক নাম) স্কুলে থাকতে হুট করে পিরিয়ড হয়ে গেলেই বেশ ঝামেলায় পড়তো। শুরু হতো ফিসফিস করে বান্ধবীদের কাছে প্যাড চাওয়া। না থাকলে দৌড়ে স্কুলের খালার কাছে যাও, দোকান থেকে আনাও। কতবার মনে হয়েছে তখন স্কুলের ভেতরেই একটি মেশিন থাকতো, যখন তখন কিনে নেয়া যেতো ন্যাপকিন।

আনিকা কলেজ পেরিয়ে ভার্সিটিতে উঠেও মাঝে মাঝে ওই ঝামেলায় পড়েন। কারণ ওই অতিরিক্ত প্যাড রাখতে ভুলেই গেছেন। এই অস্বস্তির কি শেষ আছে? আনিকার মতো হাজারো নারীর জন্য ঘরের বাইরে পিরিয়ড স্বাস্থ্যবিধি বজায় রাখার মূল বাধা ন্যাপকিনের সহজলভ্যতা। স্কুলে, কলেজে, বিশ্ববিদ্যালয়ে বা অন্য জায়গায় যেখানে দিনের বেশিরভাগ সময় কাটানো লাগে। শিক্ষার্থীদের পড়াশোনা অথবা কর্মক্ষেত্রের প্রয়োজনে, স্যানিটারি ন্যাপকিনের সহজলভ্যতা না থাকার কারণে অধিকাংশই সময়েই স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে থাকেন নারীরা।

এদিকে দেশের অধিকাংশ নারীদের মধ্যে আছে পিরিয়ডের সময় কাপড় ব্যবহার করার মতো অস্বাস্থ্যকর বিষয় নিয়ে অসচেতনতা রয়েছে। নারীদের এসব সমস্যা উত্তরণে বিশেষ উদ্যোগ নেয় বাংলাদেশের অন্যতম স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্র্যান্ড ফ্রিডম নামের একটি প্রতিষ্ঠান। ওই প্রতিষ্ঠানটি বিগত কয়েক বছর ধরে নারীদের পিরিয়ড স্বাস্থ্য সচেতনতা বাড়াতে অগ্রগামী ভূমিকা রেখে আসছে।

নারীদের স্বাস্থ্যের বিষয়টি মাথায় রেখেই আবিস্কার করেন ‘ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিন’। আর ওই প্রতিষ্ঠানটি বিনামূল্যে গত ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে সর্বপ্রথম ১০টি ‘ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিন’ স্থাপন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে। এতে করে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় ১৫ হাজার নারী শিক্ষার্থীর জন্য সাশ্রয়ী স্যানিটারি ন্যাপকিন সহজলভ্যতা নিশ্চিত হয়।

পরে পর্যায়ক্রমে ভিকারুননিসা নূন স্কুল এন্ড কলেজ, বিএএফ শাহীন কলেজ, ইডেন মহিলা কলেজ, নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়, ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় এবং এরকম আরও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে ভেন্ডিং মেশিন স্থাপন করার উদ্যোগ গ্রহন করে। ‘ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিন’-এর প্রসংশা ছড়িয়ে পড়ে সারা বাংলাদেশের নারীদের কাছে।

বর্তমানে দেশের ১০০ স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩৫ লাখেরও বেশি নারী ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিনের সহজ ও সময়ে সাশ্রয়ী স্যানিটারি ন্যাপকিন কেনার সুবিধা পাচ্ছে। বর্তমানে ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিন স্বস্তি হিসেবে ভরসা করছেন স্কুল, কলেজ থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

মাত্র ১০ টাকায় এখন যে কোনও সময়ে মেয়েরা ভেন্ডিং মেশিন থেকে ন্যাপকিন কিনতে পারায় স্বস্তিতে রয়েছেন বলে শিক্ষার্থীরা জানিয়েছেন।
শিক্ষার্থীরা জানিয়েছেন, মেশিনে একটি দশ টাকার নোট ঢোকালেই সহজেই বেরিয়ে আসে এক পিস ন্যাপকিন। এতে নেই কোনো ফিসফিস করে কারো কাছে প্যাড চাওয়ার বিড়ম্বনা। শিক্ষার্থীরা এও বলছেন যে, দোকানে যাওয়া-আসার নেই কোন ঝামেলা, আর দোকান খোলা-বন্ধ থাকার বিড়ম্বনা।

আনিকা (কাল্পনিক নাম) জানান, স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্র্যান্ড ফ্রিডমের এই চমৎকার উদ্যোগটি মেয়েদের জীবনে এনে দিয়েছে সাশ্রয়ী ন্যাপকিন ব্যবহারের অভাবনীয় সহজলভ্যতা।

স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্র্যান্ড ফ্রিডমের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ফ্রিডমের লক্ষ্যে বাংলাদেশে নারীদের জীবন-যাপনে, উদযাপনে, স্বপ্ন পূরণে, অথবা ক্ষমতায়নে পিরিয়ড যেন কোনও বাধা না হয়।

এ লক্ষ্য পূরণেই নারীদের জন্য ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিনের আবিস্কারে উদ্যোগ। তিনি আরো বলেন, যে কোনও সময়ে সহজলভ্য করার প্রাথমিক প্রচেষ্টা থেকেই ‘ফ্রিডম ভেন্ডিং মেশিন’ এর পথচলা শুরু। ফ্রিডম আগামীতে আরও ভেন্ডিং মেশিন স্থাপনের মাধ্যমে ‘ফ্রিডম হাইজিন নেটওয়ার্ক’ তৈরি করে নারীদের মেন্সট্রুয়েশন হাইজিন নিশ্চিত করতে এগিয়ে যাচ্ছে।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 www.banglapratidin24.com

This will close in 1 seconds