নিজস্ব প্রতিবেদক, বাঙলা প্রতিদিন: বিশিষ্ট ভাষাসৈনিক, বুদ্ধিজীবী, গবেষক ও প্রাবন্ধিক আহমদ রফিকের শারীরিক অবস্থার খোঁজখবর নিলেন সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ এমপি।

প্রতিমন্ত্রী আজ সকালে আহমদ রফিকের শারীরিক অবস্থার খোঁজ-খবর নিতে রাজধানীর ইস্কাটনে তাঁর বাসায় যান। তিনি এসময় আহমদ রফিকের সঙ্গে কিছু সময় কথা বলেন এবং তাঁর চিকিৎসার সর্বশেষ অবস্থা সম্পর্কে অবগত হন।

চিকিৎসার খোঁজখবর নেয়া ও দেখতে আসার জন্য আহমদ রফিক এসময় সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ও আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। তিনি তাঁর রচনাবলী (১ম খণ্ড) বাংলা একাডেমির মাধ্যমে প্রকাশের জন্য প্রতিমন্ত্রীকে অনুরোধ করেন।

প্রতিমন্ত্রী আহমদ রফিক রচনাবলী (১ম খণ্ড) বাংলা একাডেমির মাধ্যমে আগামী দুই মাসের মধ্যে প্রকাশপূর্বক আহমদ রফিকের আগামী জন্মদিনে (১২ সেপ্টেম্বর, ২০২২) উপহার হিসাবে প্রদান করা হবে মর্মে তাঁকে আশ্বস্ত করেন। এসময় তাঁর ব্যক্তিগত পক্ষ থেকে আহমদ রফিকের হাতে শুভেচ্ছা উপহার তুলে দেন।

প্রতিমন্ত্রী এসময় জানান, ভাষাসৈনিক আহমদ রফিকের শারীরিক অবস্থা বর্তমানে ভালো। তিনি ভালো আছেন যদিও বার্ধক্যজনিত বিভিন্ন জটিলতায় ভুগছেন।

সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতার আশ্বাস দিয়ে কে এম খালিদ বলেন, আহমদ রফিক একাধারে বরেণ্য ভাষাসংগ্রামী, বুদ্ধিজীবী, লেখক, প্রাবন্ধিক ও গবেষক। তিনি আমাদের রাষ্ট্রের একজন আলোকবর্তিকা। রাষ্ট্রের যে কোন সংকটে তাঁরাই আমাদের পথ নির্দেশ করেন, সঠিক পথ দেখান। ভাষা আন্দোলনসহ বাঙালির প্রতিটি আন্দোলন-সংগ্রামে তাঁর ভূমিকা ছিল অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। সৃষ্টিশীল লেখা ও গবেষণা ছাড়াও তিনি জাতীয় ক্ষেত্রে অনন্য ভূমিকা পালন করেছেন।

এসময় প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক কবি মুহম্মদ নূরুল হুদা, সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রীর একান্ত সচিব (উপসচিব) মোহাম্মদ আলতাফ হোসেন, বাংলা একাডেমির পরিচালক মোবারক হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, গতবছর (২০২১ সালের ২৩ সেপ্টেম্বর) সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদের নির্দেশনায় মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে অসুস্থ আহমদ রফিকের হাতে তিন লাখ টাকার চেক তুলে দেয়া হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here